এই জোকগুলো বুঝতে হলে আপনাকে জীবনে একবার বাবা হতেই হবে

৫১৬১ পঠিত ... ১৭:৩৫, জুন ১৮, ২০২৩

এই-জোকগুলো

১#

বাবা: গালিগালাজ করার জন্য মাস্টার সাহেব তোকে মেরেছেন?

ছেলে: হ্যাঁ। তিনি জিজ্ঞেস করেছিলেন, এই গালাগালি আমি কী করে শিখলাম? কার থেকে শিখলাম?

বাবা: তুই কী বললি?

ছেলে: তোমার কথা বললে তো তোমার অসম্মান হবে, তাই তোমার তোতা পাখিটার কথা বলেছি।

২#

হোটেল থেকে খেয়ে বের হচ্ছেন আজাদ সাহেব…

ম্যানেজার: আপনার ছেলে আমাদের হোটেলে খেয়ে, আপনার থেকে বেশি বকশিশ দিয়ে যায়।

আজাদ সাহেব: তা দিতে পারে। ওর বড়লোক বাপ আছে, আমার নেই।

৩#

বাবা: বুড়ো লোকটার পা মাড়িয়ে দেওয়ার জন্য তার কাছে ক্ষমা চেয়েছিলে?

ছেলে: হ্যাঁ। ক্ষমা চাওয়ার জন্য খুশি হয়ে উনি আমাকে ১০ টাকা দিলেন।

বাবা: তাই নাকি? তাহলে কাঁদছো কেন তুমি?

ছেলে: আবার যখন আরেকটা পা মাড়িয়ে ক্ষমা চাইলাম, তখন তিনি আমার গালে একটা থাপ্পড় দিলেন।

৪#

ছেলে: বাবা তোমার মুখটা কেমন, সে বিষয়ে তোমার ধারণা আছে?

বাবা: আছে, কেন?

ছেলে: না, তেমন কিছু নয়। অসুবিধা হবে না। তোমার দাড়ি কামাবার আয়নাটা হঠাৎ ভেঙে ফেলেছি তো।

৫#

বাবার সাথে চিড়িয়াখানায় বেড়াতে এসেছে রাজিব…

রাজিব: আচ্ছা বাবা, জিরাফ যদি পানি ঘাঁটে তাহলে কী ওদের ঠান্ডা লাগে? সর্দি হয়? আমার তো মনে হয় সর্দি হয় না ওদের। পাগুলো কেমন লম্বা দেখেছো?

বাবা: সর্দি হয়। তবে দিন সাতেক পরে। ঠান্ডাটা মাথায় পৌঁছাতে সময় লাগে তো।

৫১৬১ পঠিত ... ১৭:৩৫, জুন ১৮, ২০২৩

আরও

পাঠকের মন্তব্য

 

ইহাতে মন্তব্য প্রদান বন্ধ রয়েছে

আপনার পরিচয় গোপন রাখতে
আমি নীতিমালা মেনে মন্তব্য করছি।

আইডিয়া

গল্প

রম্য

সঙবাদ

সাক্ষাৎকারকি

স্যাটায়ার


Top