জুরাইনের এই রাস্তাটি নিয়ে চলছে সড়ক, নৌ ও রেল কর্তৃপক্ষের দ্বন্দ্ব

৩১৬ পঠিত ... ২০:২৪, অক্টোবর ০২, ২০১৯

অক্টোবর মাসের প্রথম দিন (মঙ্গলবার) ঢাকাবাসী পেয়ে যায় বৃষ্টিস্নাত হবার এক অভিনব সুযোগ। সকাল থেকেই রাজধানীর বিভিন্ন অঞ্চলে শুরু হওয়া বৃষ্টিতে ভেসে যায় পুরো শহর। দিনের শেষদিকে ফেসবুকে রায়হান হাসান ঢাকার জুরাইনে তোলা চলমান (নাকি ভাসমান) ট্রেনের একটি ছবি পোস্ট করেন। ছবিটি প্রকাশের পর থেকেই ফেসবুকে আলোচনার কেন্দ্রে চলে আসে। আর এরপর জানা যায় এক ত্রিমুখী দ্বন্দ্বের কথা। সড়ক ও জনপথ অধিদপ্তর (সওজ), বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌ-পরিবহন কর্পোরেশন (বিআইডব্লুটিসি) এবং বাংলাদেশ রেলওয়ে, তিনটি প্রতিষ্ঠানই জুরাইনের এই অঞ্চলটির অধিকার দাবি করেছে।

ছবি: রায়হান হাসান

ট্রেন চলার এই রাস্তাটির ব্যাপারে প্রথম দাবিটি করে বিআইডব্লুটিসি। এটিকে নৌপথ বলে দাবি করে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক কর্মকর্তা বলেন, ‘স্বাভাবিক দৃষ্টিসম্পন্ন যেকোনো মানুষ বুঝবে এটা একটা জলপথ। এমন ঢেউ তো টাইটানিক পানিতে চললেও হয় না।’ কিন্তু জলপথে কী করে ট্রেন চলছে সে বিষয়ে প্রশ্ন করা হলে তিনি eআরকিকে বলেন, ‘এসব কিছুই আধুনিক প্রযুক্তির অবদান। নৌপথে শুধু নৌকা, লঞ্চ চলবে এমনটা যারা ভাবে তারা পিছিয়ে পড়া সমাজের অংশ। আধুনিক পৃথিবীতে নৌপথে শুধু ট্রেন না, বাস, ট্রাক, রিকশা সবই চলতে পারে।’ 

অন্যদিকে অঞ্চলটি কেবলমাত্র রেলওয়ের অধিকারেই আছে এমন দাবি করে রেলওয়ের এক কর্মকর্তা বলেন, ‘ছবিতে আপনারা চলমান একটা ট্রেন দেখছেন। চলমান ট্রেন তো কখনো রেললাইন ছাড়া চলতে পারে না। রেললাইন যেখানে, আমরাও সেখানে। ফলে এইটা নিয়ে প্রশ্ন তোলাটাই একটা বাতুলতা!’

তবে সওজের এক কর্মকর্তার কথায় পাওয়া যায় একেবারেই ভিন্ন সুর। eআরকিকে তিনি বলেন, ‘জলাবদ্ধতা হচ্ছে একটা স্থলজ ব্যাপার। ঢাকা শহরে কোথায় পানি আছে? শুধু বৃষ্টি হলেই না রাস্তায় পানি জমে। আর রাস্তার অধিকার তো সওজেরই! নাকি?’ বিআইডব্লুটিসির দাবির ব্যাপারে প্রশ্ন করা হলে সেই দাবিকে হেসে উড়িয়ে দিয়ে তিনি বলেন, ‘কী একটা হাস্যকর কথা শুনাইলেন। ঢাকা শহর পুরাটাই তো পানির নিচে থাকে। এখন কি ঢাকার পুরাটাই বিআইডব্লুটিসির নাকি? মামা বাড়ির আবদার!’

পুরো বিষয়টি নিয়েই ফেসবুকে চলছে নানারকম আলোচনা। হাফিজুর রহমান রিক eআরকিকে বলেন, ‘এই রুটের লিগ্যাল ডিসপিউট নিয়ে বিআইডব্লিউটিএ, সওজ, বিআরটিসি আর বাংলাদেশ রেলওয়ের মধ্যে মারামারি চাই।’

৩১৬ পঠিত ... ২০:২৪, অক্টোবর ০২, ২০১৯

Top