ফাইনাল প্রফের আগে ভর্তি বাতিলের খবর শুনে হাঁফ ছেড়ে বাঁচলেন জনৈক মেডিকেল শিক্ষার্থী

৩৬৯ পঠিত ... ২০:৪০, জুলাই ২৬, ২০২০

দীর্ঘ সময় পরে হলেও অবশেষে ধরা পড়েছে মেডিকেল ভর্তি পরীক্ষার প্রশ্ন-ফাঁস চক্রটি। ফাঁস করা প্রশ্নপত্রে মেডিকেল ও ডেন্টাল কলেজে ভর্তি হওয়া ৭৮ জন শিক্ষার্থীর নামের তালিকা সিআইডিকে দিয়েছেন রিমান্ডে থাকা তিন আসামি। খবর: প্রথম আলো।

ধারণা করা হচ্ছে, ওই শিক্ষার্থীদের মেডিকেলের ভর্তি বাতিল করা হতে পারে। তালিকায় থাকা সকলেই পড়াশোনার প্রায় শেষ পর্যায়ে আছেন। আর তাই, ভর্তি বাতিলের এই খবর ছড়িয়ে পড়তেই ফাইনাল ইয়ারের ছাত্র-ছাত্রীদের মধ্যে এক ধরনের চাঞ্চল্য সৃষ্টি হয়েছে। অনেকেই শংকিত, আতঙ্কিত।

তবে ব্যতিক্রমও আছে। সেরকমই একজন মেডিকেল শিক্ষার্থী ভর্তি বাতিলের খবর শুনে স্বস্তি প্রকাশ করেছেন। জানা যায়, সামনেই তার ফাইনাল প্রফ, আর তিনি প্রশ্ন কিনেই চান্স পেয়েছিলেন মেডিকেল কলেজে।

ওই শিক্ষার্থী তার ফেসবুক স্ট্যাটাসে লিখেছেন, 'উফফ! বাঁচলাম! ফাইনাল প্রফের চিন্তায় শ্বেত রক্ত কণিকাগুলো দুর্বল হয়ে যাচ্ছিলো। অক্সিজেন স্যাচুরেশন নেমে যাচ্ছিলো শূন্যের দিক। ভর্তি বাতিল উপলক্ষ্যে আমি ওয়ার্ডের সবাইকে আজ মিষ্টি খাওয়াবো।'

সার্জারি আর গাইনিতে নির্ঘাত ফেল হইতো, এমনটা উল্লেখ করে তিনি আরো লিখেছেন, 'সার্জারির দুশ্চিন্তায় ইদানিং স্বপ্নের মধ্যে নিজেই নিজের পিত্তথলি কেটে পাথর বের করতাম। তারপর পেট সেলাই করার জন্য সুতো খুঁজে পেতাম না। সে যে কি এক দুঃস্বপ্ন!'

মেডিকেল এরকম টক্সিক জায়গা জানলে অতগুলো টাকা দিয়ে প্রশ্ন কিনতাম না, জানিয়ে তিনি বলেন, 'তখন তো বুঝিনি যে, লাইফ এরকম ছারখার হয়ে যাবে! ফাইনাল প্রফের আগে ভর্তি বাতিল এর খবর শুনে আনন্দে আমার চোখ ভিজে উঠেছে। আমি এবার ব্যাগ গুছিয়ে বাড়ি যেতে চাই। একটু শান্তিতে ঘুমাতে চাই!'

প্রশ্ন ফাঁস চক্রকে ধরার জন্য তিনি সিআইডিকে ধন্যবাদ দিয়ে বলেন, 'আংকেল আপনারা ছিলেন বলেই এতদিন পর আমি সুখবরটি পেলাম। আমার টাকা রিফান্ডিং হলে অর্ধেকটা দিয়ে আপনাদের মিষ্টি কিনে খাওয়াবো।'

এসময় ওই শিক্ষার্থীর বাবা এসে কমেন্টে লেখেন, 'ওরে বজ্জাত! এইজন্য তোর পেছনে আমি এত টাকা ঢেলেছি?'

কমেন্ট দেখেই ওই শিক্ষার্থী তার স্ট্যাটাস ডিলিট দিয়ে নতুন স্ট্যাটাসে লেখেন, 'আমার আইডি হ্যাক হয়েছিলো।'

৩৬৯ পঠিত ... ২০:৪০, জুলাই ২৬, ২০২০

Top