হীরক রাজার দেশে, তেল ফুরিয়ে গেছে?

৩৭৭ পঠিত ... ১৭:০২, জুলাই ২৩, ২০২২

Hirok-rajar-deshe-tel-furiye-geche (1)

 

গবেষক: কী মহারাজ, হঠাৎ তলব, কোথাও কোনো গণ্ডগোল?

চারিদিকে চুপচাপ, বাদ্যি নাই, শানাই নাই, নাই যে কোন ঢোল?

 

রাজামশায়: তলব কি আর সাধে,

আমার রাজ্যে প্রজারা আজ লোডশেডিং এ কাঁদে!

 

গবেষক: কাঁদতে দিন, নিমক হারাম, ভুলে গেছে অতীত

কদিন আগেও এই মুল্লুকে বিদ্যুৎ ছিল স্বপ্নাতীত!

এখন পেয়ে বাড় বেড়েছে, একটু গেলেই সয় না

এদের বেশি লাই দিবেন না, শিক্ষা এদের হয় না!

 

রাজামশায়: কী বলছো গবেষক, সামনে আবার পালাবদল!

 

গবেষক: এরা বহুত খতরনাক আছে, সুযোগ পেলেই করে মালাবদল!

 

রাজামশায়: এখন কী করি কী উপায়,

তোমার কাছে পরামর্শ চাই!

 

গবেষক: রাজাকে দিবো আমি পরামর্শ, আমার ঘাড়ে কয়টা মাথা?

 

রাজামশায়: নষ্ট করার সময় নাই, ওসব ছাড়ো ছাতামাথা!

কী করি আজ ভেবে না পাই, পথ হারিয়ে কোন বনে যাই

কোথায় গেলে পাবো আবার তেলের দেখা দেশে!

সামান্য এই তেল সংকটে, কী জানি হয় শেষে!

 

গবেষক: অত ভাববেন না, তেল ফুরিয়েছে তো কী?

এইদেশে কি তেলের আবার অভাব আছেনি!

গ্যালন গ্যালন দিলো যারা, সেই তেল আজ কই?

কই-এর তেলে কই ভেজে দিন, সমাধানটাও ওই!

কথার কথায় যারা তেল দিয়েছে, তাদের পাঠান যন্ত্রে

তাদের তেলেই বিদ্যুৎ আসুক, দেশ চালানো মন্ত্রে! 

 

রাজামশায়: ওসব ফাও কথাও বাদ দাও ঘুম নাই, মন নাই কাজে!

আমার রাজ্যে বিদ্যুৎ নাই, আমি বাঁচি না সেই লাজে!

এদিকে ডলারও আজ আকাশচুম্বি শ-ছুঁয়েছে কবে,

এত প্যারা ভাল্লাগে না, এবার যে কী হবে!

 

গবেষক: লাজ লজ্জা চুলোয় যাক, আপনি বাঁচলে বাপের নাম!

শক্ত করে হালটা ধরেন, যা হবে এইটার উপর, এটাই এখন ট্রাম!

সর্বক্ষেত্রে সব করেছেন, বাদ রাখেন নি কিছু,

চিনতে হয়তো ভুল করেছেন, ছিল কারা পিছু।

হাতে এখনো সময় আছে পড়বেন না ভেঙে

আপনিতো আর কম করেন নি চেষ্টা,

তাদের ধরেন, যাদের জন্য আজ হলো এমন

সব ভালো তার, যার ভালো হয় শেষটা!

 

রাজামশায়: সেসব না হয় পরে হবে, এখন কী উপায়?

 

গবেষক: ঢোল পিঠিয়ে জানিয়ে দিই,

কোথাও কোনো লোডশেডিং নাই!

যা দেখতেছে অন্ধকার,

জাতির চোখে ছাই।

 

রাজামশায়: এসব বলে পার পাবো?

যাইতেছিলাম সিঙ্গাপুর,

মাঝপথে আজ কি যে হলো

শ্রীলংকা আর কত দূর!

 

গবেষক: লংকা হওয়া সহজ না লংকাররা শিক্ষিত!

চোরের গাড়ি ভাঙলেও, দেশের বেলায় দেশপ্রেমেতে দীক্ষিত।

আপনার প্রজা ওমন না, ভাঙতে পারে সবকিছু

অন্যের জন্য গর্ত খুঁড়ে, শাবল ধরে নিজের পিছু।

 

রাজামশায়: তুমি আজ বকেই যাচ্ছে উপায় কিছু না বলে,

 

গবেষক: আমার কী আর করার আছে, সময় যখন গেছে চলে!

 

রাজামশায়: আমাদের যা কিছু গেছে তা কি একেবারেই গেছে

কিছু কি নেই বাকি?

 

গবেষক: বাকির নামে ফাঁকি!

আছে হয়তো, দ্যাখতে হবে চক্ষু মেলিয়া

চোখের উপর টিনের গ্লাসে, এমনে যায় বিদেশ চলিয়া।

 

রাজামশায়: কী এমন বিদেশ গ্যাছে, কথার কথায় বিদেশ!

মানচিত্রে যেথায় থাকার কথা সেখানেই আছে স্বদেশ!

 

গবেষক: মানই যদি নাই থাকে চিত্র দিয়ে হবে কী?

শিক্ষা গেছে, দেশপ্রেম গেছে, সাথে গেছে মূল্যবোধ

উপর থেকে তেল পড়েছে, তেলে ভেসে গেছে সব,

বাকি শুধু জনমনে কিছু করতে না পারার ক্রোধ!

 

রাজামশায়: ডাকলাম তোমায় পথ দেখাতে, কী যে তোমার হেডিং,

 

গবেষক: আপনাকে আর কী দেখাবো, সবার জন্যইতো একই লোডশেডিং!

৩৭৭ পঠিত ... ১৭:০২, জুলাই ২৩, ২০২২

আরও

পাঠকের মন্তব্য

 

ইহাতে মন্তব্য প্রদান বন্ধ রয়েছে

আপনার পরিচয় গোপন রাখতে
আমি নীতিমালা মেনে মন্তব্য করছি।

আইডিয়া

গল্প

রম্য

সঙবাদ

সাক্ষাৎকারকি


Top