সরকারি চাকরিজীবীদের দুর্নীতির টাকাকে ফ্রিল্যান্সিং আয় ঘোষণার দাবী 

১৬৯ পঠিত ... ১৭:৫৬, মে ৩০, ২০২৪

46c4dad3-9487-4b3b-8091-e31244c3e57c

সরকারি চাকরিজীবীদের দুর্নীতির টাকাকে ফ্রিল্যান্সিং আয় ঘোষণার দাবি নিয়ে আন্দোলনে বসেছেন কয়েক স্তরের সরকারি চাকরিজীবী। একটি ভুয়া তথ্যসূত্র থেকে এমনটাই নিশ্চিত হয়েছে eআরকি।

সমাবেশে নিজের বক্তৃতায় সংগঠনের সভাপতি বলেন, সকলেই জানেন সরকারি চাকরি একটা সোনার হরিণ। একবার যে সোনার হরিণ পায় তার জীবনে শুধু টাকা পয়সার বন্যা বইবে এটাই তো স্বাভাবিক। একজন সরকারি কর্মকর্তার হাত ধরে বছরের পর বছর আটকে থাকা ফাইল ক্লিয়ার হয়ে যায় নিমেষে। আজকাল অনলাইনে কেনাকাটা করতে গেলে ক্যাশ অন ডেলিভারির যে সিস্টেমটা আছে সেটা কোথা থেকে আসছে জানেন? আমাদের মতো সরকারি কর্মকর্তারা যারা সাইন করে এক যুগের ময়লা ফাইলের গতি বাড়াই তারা না হয় সাইনের জন্য কিছুটা সম্মানী কিংবা হাদিয়া নিয়ে থাকি। এতে আমাদের দোষারোপ করার মতো কিছু কি আদৌ আছে। এই সময়ে আপনি কোথায় টাকা ছাড়া কোনো কিছু হতে দেখেছেন, রাস্তায় গিয়ে এক গ্লাস পানিও আপনাকে টাকা দিয়ে কিনে খেতে হচ্ছে। আপনারা পানি খেতে টাকা খরচ করবেন, টাকা খরচ করে বাড়ি বানাবেন, গাড়ি কিনবেন, টাকা দিয়ে স্কুলে পড়াবেন নিজের সন্তানকে আর আমাদের সাইন একেবারে বিনামূল্যে নিয়ে যাবেন? এটা তো হয় না।  

ফ্রিল্যান্সিং করে দেশের তরুণরা লাখ লাখ টাকা আয় করে, সরকারি কর্মকর্তাদের টাকার বিনিময়ে সাইন দেয়াও তো এক ধরনের ফ্রিল্যান্সিং। এই কাজটা তো সরকারি কর্মকর্তারা কাজের বাইরেই করে। তাহলে ওদেরকে অ্যাপ্রিশিয়েট করা হলেও সরকারি চাকরিজীবীদের এই আয়কে বলা হয় দুর্নীতি। এমন দৃষ্টিভঙ্গির সমালোচনা করেছেন সরকারি কর্মকর্তারা।

এক সরকারি কর্মকর্তা আরও বলেন, জানেন আমরা আমাদের সাইনকে সুন্দর করার জন্য নিজেদের জন্য পার্সোনাল ট্রেইনার রাখি। কার সাইন সবচেয়ে সুন্দর সেটা নিয়ে ফিসফাস হয় একে অপরের পেছনে। রাতের পর রাত জেগে সাইনে কার্ভ নিয়ে আসি আমরা। আপনারা চাইলেই আমাদেরকে বিনে পয়সায় খাটিয়ে নিতে পারেন না। দিনে কয়েশ ফাইলে সাইন করতে গিয়ে আমরা আমাদের হাতের মূল্যবান নার্ভগুলোর কেমন ক্ষতি করছি সেটা তো আমরাই জানি। আর সেটাকে কি না আপনারা বলেন দুর্নীতি!

সমাপনি বক্তব্যে সংগঠনটির জুনিয়র এক সহ-সভাপতি বলেন, আমরা চাই আপনারা আমাদের জুতায় এসে আমাদের পরিস্থিতি বুঝুন। আমাদের পেশাকে সম্মান করতে শিখুন। আমরা চাই আমাদের যে সাইনের বিনিময়ে টাকা নেই তা ফ্রিল্যান্সিং হিসেবে স্বীকৃতি দেয়া হোক। এই স্বীকৃতির মাধ্যমে দেশ যেমন অসম্মানের হাত থেকে বাচবে তেমনি রাষ্ট্রীয় কোষাগারে ট্যাক্স হিসেবে হাজার কোটি টাকা জমা হবে। দেশের জিডিপি বাড়বে তরতরিয়ে।

১৬৯ পঠিত ... ১৭:৫৬, মে ৩০, ২০২৪

Top