কোরবানির ইদে আপনি কি এই জিনিসগুলোও কোরবানি দিতে চান?

২৪৪ পঠিত ... ১৮:০০, জুন ২৮, ২০২২

Qurbani

প্রায় চলে এসেছে কুরবানির ইদ, এই ঈদে প্রিয় পশু কুরবানি দেওয়ার নিয়ম। কেমন হতো যদি জীবনের কিছু অপ্রিয় ব্যাপারগুলোকেও কুরবানি দেওয়া যেত? চলুন দেখা যাক, এই কুরবানিতে আরো যা যা কুরবানি দিতে পারলে ভালো হতো…

 

১। বসের গালিগালাজ: অনেকেরই অফিসের বসের গালি শুনতে হয় উঠতে বসতে। এমনকি অফিস থেকে বাসায় ফিরেও নিস্তার নেই, মেইল করে গালিসমগ্র পাঠিয়ে দেন বস। তো এই কুরবানির ইদে বসের গালিগালাজ কুরবানি দিতে পারলেই বছরের বাকিটা সময় আরামে কেটে যাবে।  

 

২। সেমিস্টার ফাইনাল এক্সাম: সেমিস্টার শুরু হয়েছে মাত্র। এই হয়তো একটু চোখ বুজেছেন, চোখ খুলতেই দেখা যাবে সিআর সেমিস্টার ফাইনালের রুটিন ধরিয়ে দিয়েছে। ফাইনাল এক্সামটা কুরবানি দিতে পারলেই আরাম আর আরাম। 

 

৩। এক্সের সোশ্যাল মিডিয়া আইডি: শেষ হইয়াও হইল না শেষ টাইপ অবস্থা তখনও দেখা যায়, যখন এক্সকে আপনি ব্লক করতে পারেন না। প্রায়ই স্টক করেন, সাথে বাড়ে মনোকষ্ট। তাই এক্সের সব আইডি কুরবানি দিন চোখ বুজে মানে ব্লক করুন আরকি!

 

৪। ক্রাশের অতিরিক্ত ভাব: ক্রাশের দিকে অপলক তাকিয়ে আছেন, সেও তাকায় মাঝে মাঝে। কিন্তু হুট করেই দেখা যাবে তার ভাবের মাত্রা বেড়ে তিনগুণ। নিজের ভালো লাগা বজায় রাখতে ক্রাশের এই ভাব কুরবানি দিতে পারলে কত ভালো হত!

 

৫। ঢাকার অতিরিক্ত জ্যাম: ঠিক সময়ে ডেইটে যাওয়া হয় না, ক্লাস ধরা যায় না, অফিসে লেইট ফলে চাকরিচ্যুত সবকিছুর পেছনে দায়ী এই মরার জ্যাম৷ দারুণ হত যদি এই জ্যামকেও কুরবানি দেওয়া যেতো।

 

৬৷ পদ্মাসেতুর উপর আজাইরা কর্মকাণ্ড: নিজের টাকায় নিজের সেতু বানিয়েও কি শান্তি আছে? কেউ এসে টিকটক স্পট বানাচ্ছে, কেউ নাটবল্টু খুলে নিয়ে যাচ্ছে। এসব কাজ একেবারে কুরবানি দিতে পারলেই দেশ ও দশের শান্তি মিলবে৷

 

৭৷ কাজের ডেডলাইন: প্রতিবারই মনে হয় কাজের ডেডলাইন যদি আরেকটু বাড়ানো যেত তাহলেই বুঝি সুন্দরভাবে কাজ সম্পন্ন হত। কেমন হত যদি ডেডলাইনকেই কুরবানি দেওয়া যেত! না থাকতো ডেডলাইন, না থাকতো কাজ শেষ করার টেনশন।

 

৮৷ পাশের বাসার আন্টির কুদৃষ্টি: পরীক্ষায় খারাপ রেজাল্ট করেছেন? প্রেম করতে গিয়ে ধরা খেয়েছেন? যে কোনো মাইনকার চিপায় পড়লেই পাশের বাসার আন্টি নিজের বাসায় হাজির হয়ে যায় ব্যাপারটাকে আরও জটিল করতে৷ আন্টিদের এই কুদৃষ্টি কুরবানি দিতে পারলেই জীবনের অর্ধেক সমস্যা গায়েব হয়ে যেতো।

২৪৪ পঠিত ... ১৮:০০, জুন ২৮, ২০২২

Top