উঠছে না আশানুরূপ সালামী, প্রণোদনার দাবি সালামী প্রত্যাশীদের

৮৮১ পঠিত ... ১৫:৩৮, মে ১৬, ২০২১

salami-pronodona

রমজানের ওই রোজার শেষে ঈদ চলে এসে শেষও হয়ে গেছে। তবে ঈদের টিভি চ্যানেলগুলোয় ৭ দিন ব্যাপী ঈদের অনুষ্ঠান থাকলেও সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ অনুষ্ঠান 'সালামী' ঈদের দিনই প্রায় শেষ হয়ে যায়।

করোনা পরিস্থিতিতে অনেকেই কাটিয়েছেন ঘরে বসে কিংবা নিজের এলাকায়। আশেপাশের এলাকার আত্মীয়স্বজনদের বাসায় যাওয়া হয়নি বা অন্য এলাকা থেকে আত্মীয় আসেনি। ফলে প্রায় সবারই মন্দায় পড়ে গেছে সালামী খাত। বেশিরভাগ মানুষই সোশ্যাল মিডিয়ায় বিকাশ রকেটে নগদে সালামী চেয়ে পেয়েছেন ৫ টাকা ১০ টাকা। আড়ালে থেকে ৫ টাকা পাঠাতেও লজ্জা পাচ্ছেন না গুটিকতক বেহায়া সালামীদাতাগণ।

এমতাবস্থায় সকল সালামী প্রত্যাশীদের পক্ষ থেকে 'সচেতন সালামী কালেক্টর পরিষদ' এর ব্যানারে সরকারের কাছে ঈদের দিনের ভর্তুকি ও প্রণোদনার দাবী করেন কিছু তরুণ-তরুণী। এরই মধ্যে অর্থমন্ত্রীকে চিঠি দিয়ে দাবি জানিয়েছে চাঁদপুরের দুইটি সংগঠন (তারা আবার আগে আগে না করলে পারে না)।

বিশেষজ্ঞরাও বলছেন, এই মহামারীর মধ্যে যতটা সম্ভব প্রণোদনা দিয়ে সালামী সেক্টরকে বাঁচিয়ে রাখতে হবে।

এদিকে জানা গেছে, সালাম করেও সালামী না পেয়ে শুধু 'বেঁচে থাকো বাবা' শুনেই অনেকে মানসিকভাবে ভেঙে পড়ছেন। এমনই একজন তরুণ নাজমুল জানান, 'এরকম চলতে থাকলে ঈদের মতো উৎসবের প্রতি আশা হারিয়ে ফেলবে তরুণ প্রজন্ম। সরকারের কাছে অনুরোধ, আমাদের ক্ষতি পুষিয়ে দিতে জরুরি ব্যবস্থা নেয়া হোক।'

সচেতন সালামী কালেক্টর পরিষদের সভাপতি প্রত্যয় সংবাদ সম্মেলনে বলেন, 'বর্তমান করোনা পরিস্থিতিতে ছেলেবুড়ো সবার সালামী কালেকশনই ব্যাপক হারে কমেছে। অর্থায়নের ব্যবস্থা না হলে ঈদ পরবর্তী ক্ষুদ্র ও মাঝারি হ্যাংআউট গুলোতে বিল প্রদান নিয়ে বিশৃঙ্খলার সৃষ্টি হতে পারে। তাই সরকারের কাছে আকুল আবেদন ঈদের দিনের ভর্তুকি...' এই পর্যন্ত বলে তিনি কান্নায় ভেঙে পড়েন।

৮৮১ পঠিত ... ১৫:৩৮, মে ১৬, ২০২১

Top