রাজধানীতে তরুণীদের লাইন: পি কে হালদারের বান্ধবী হতে চায় সবাই

১০৬৩ পঠিত ... ২২:৩১, ডিসেম্বর ২০, ২০২০

এই যুগে নাকি বন্ধুর মতো বন্ধু পাওয়া যায় না৷ সেই কথাকে একেবারেই মিথ্যা প্রমাণ করেছেন পিকে হালদার। এনআরবি গ্লোবাল ব্যাংকের এমডি হালদার ভাই তার আর্থিক প্রতিষ্ঠান হতে প্রায় ৩০০০ কোটি টাকা আত্মসাৎ করে বিদেশে আত্মগোপন করে আছেন তো অনেকদিন হলো। তবে আশ্চর্য তথ্য এই যে, পিকে হালদার বিভিন্ন সময়ে মোটা অঙ্কের টাকা পাঠাতেন তার ৭০-৮০ জন বান্ধবীর অ্যাকাউন্টে!

এই সংবাদকে কেন্দ্র করে তরুণীমহলে পড়ে গেছে ভীষণ শোরগোল৷ রাজধানীতে লম্বা লাইন পড়ে গিয়েছে আবালবৃদ্ধবনিতার, দাবি একটাই, পি কে হালদারের বান্ধবী হতে চাই।

কেন পি কে হালদারের বান্ধবী হতে চান, এমন প্রশ্নে গুলশানের লুনা (২৩) নামের এক রমনী জানান, 'ভাই বয়ফ্রেন্ড এত কিপটা, বিশ টাকার ফুচকাও খাওয়াতে চায় না। পি কে হালদারের খোঁজ পেয়ে সাথে সাথে ব্রেক আপ করে চলে এলাম।'

পি কে হালদারের সাথে কি প্রেম করবেন? এমন প্রশ্নে অবশ্য তরুণী দ্রুত 'না' বলে জানান, 'উনি তো টাকা প্রেমিকার অ্যাকাউন্টে রাখেন না, রাখেন বান্ধবীর একাউন্টে। তাই অন্য একটা প্রেম করে উনাকে জাস্ট ফ্রেন্ড হিসেবে রাখব।'

ফরিদা (৪০) নামের এক মধ্যবয়সী নারীর কাছে প্রশ্ন করে পাওয়া গেলো প্রায় একই ধরনের উত্তর। এয়ারটেলের বিজ্ঞাপনের স্টাইলে ফরিদা বললেন, 'পি কে হালদারের মতো বন্ধু থাকলে সব পসিবল...'

লাইনের শেষের দিকে হালিমা (৬০) নামের এক বৃদ্ধা জানালেন, 'আমিও পি কে হালদারের বান্ধবী হইতে চাই... বয়স হইলেও বান্ধবী হওনের যোগ্যতা আমার আছে...' বেড়েই চলছে রাজধানীর এই লাইন, অন্যান্য জেলা থেকেও আসতে শুরু করেছেন রমনীরা৷ তবে কোথায় সেই পি কে হালদার? তিনি কি তার নতুন বান্ধবীদের ভালোবেসে দেশে ফিরতে পারেন না?

১০৬৩ পঠিত ... ২২:৩১, ডিসেম্বর ২০, ২০২০

Top