ব্রেকিং নিউজ: ওবায়দুল কাদেরের সর্বশেষ ছবি আপলোড দেয়ার একমাস পূর্ণ হলো আজ

২১৮ পঠিত ... ১৬:৪০, জানুয়ারি ২৬, ২০২২

oka-1-month-no-pic

 

আজ একটি বিশেষ দিন পার করছে বাংলাদেশ। ফেসবুকের জনপ্রিয় মডেল এবং সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রী জনাব ওবায়দুল কাদেরের ফেসবুকে সর্বশেষ ছবি আপলোড দেয়ার এক মাস পূর্ণ হলো। সর্বশেষ গত ২৬/১২/২০২১ তারিখে তিনি ফেসবুকে ২০টি ছবি আপলোড করেন। সেখানে ২১ হাজার রিঅ্যাকশন, প্রায় ৪ হাজার কমেন্ট পড়ে।

এই দিনটিকে নিয়ে জনাব কাদেরের ভক্তদের মাঝে মিশ্র প্রতিক্রিয়া লক্ষ করা গেছে। কেউ কেউ এই দিনে শোক করছেন, কেউ বা ছবি আপলোড না দেয়ার পক্ষে বের করছেন নানা যুক্তি।  

তবে এতসবের মাঝে একমাস ধরে ছবি আপলোড না দেয়ায় কিছুটা হতাশা ও চিন্তাও আছে অনেকের মাঝে। কোনভাবেই নিজেকে বোঝাতে পারছেন না। ঠিকঠাক খেতে, ঘুমাতে পারছেন না বলেও জানা যায়। এমনই একজন ঘুম থেকে উঠে বলেন, ‘দুই তিন ধরেই খুব চিন্তা হচ্ছে। আসলে ওনার ছবি দেখতে দেখতে খাই, ঘুমাই। ছবি আপলোড না দেয়ায় সব ঠিকঠাক হচ্ছে না। আজকের ভোরের দিকে একটু ঘুমাইলাম। মাত্র ওনাকে স্বপ্ন দেখে জেগে উঠছি।’

এক পর্যায়ে কাঁদতে কাঁদতে তিনি বলেন, ‘ স্বপ্নে ওনার মুখটা একটু মলিন দেখলাম। মানুষটার কী হয়েছে? উনি কি আমাদের উপর অভিমান করে আছেন? আমরা কি কোন ভুল করেছি? নিজের অজান্তে কি মানুষটাকে কোনো কষ্ট দিয়েছি?’

অনেকে জনাব কাদেরকে স্পেস দেয়ার পক্ষে কথা বলছেন। এমনই এক শিল্প বোদ্ধা ভক্ত বলেন, ‘উনি শিল্পী মানুষ। সবসময় তো মুড আসে না। ছবি তোলার মুড আসলে অবশ্যই তুলবেন। এই যে ধরেন উনি ফুল ধরে ছবি তোলেন, ফুল ধরার একটা মুডের ব্যাপার আছে, ফুলের নিজেরও তো একটা মুডের ব্যাপার আছে। সব একসাথে না মিললে তো ভালো কিছু হবে না। আপনারা ওনাকে একটু সময় দেন। নিশ্চয়ই উনি আমাদেরকে হতাশ করবেন না।’  

ছবি আপলোড না দেয়ার পেছনে অনেকে এদেশের মানুষকে দায়ী করছেন। এমনই এক ভক্ত কিছুটা উত্তেজিত হয়ে বলেন, ‘মানুষটার আগের ছবিগুলো দেখেন, ৫০ হাজারের নিচে রিঅ্যাকশনই নাই। এর আগের একটা অ্যালবামই ৭১ হাজার ছাড়িয়ে গেছে। অথচ একমাস আগের অ্যালবামটা মাত্র ২১ হাজার। হতাশ তো উনি হবেনই। এদেশের মানুষ আসলে কখনোই গুণীর কদর করতে জানে না। ওনার ছবি আপলোড না দেয়ার সকল দায়ভারই এদেশের জনগণের।’

২১৮ পঠিত ... ১৬:৪০, জানুয়ারি ২৬, ২০২২

আরও

পাঠকের মন্তব্য

 

ইহাতে মন্তব্য প্রদান বন্ধ রয়েছে

আপনার পরিচয় গোপন রাখতে
আমি নীতিমালা মেনে মন্তব্য করছি।

আইডিয়া

গল্প

রম্য

সঙবাদ

সাক্ষাৎকারকি


Top