চিকিৎসক ও স্বাস্থ্যকর্মীদের নকল N95 মাস্ক দেয়ার 'যৌক্তিক' কারণসমূহ

৯৬৯ পঠিত ... ২০:০৪, এপ্রিল ২১, ২০২০

চিকিৎসক ও স্বাস্থ্যকর্মীদের জন্য ২০৬০০ পিছ মাস্ককে N95 মাস্ক হিসেবে বাংলাদেশ সরকারের কেন্দ্রীয় ঔষধাগারে সরবারাহ করেছিলো জেএমআই হসপিটাল রিকুইজিট ম্যানুফ্যাকচারিং নামে একটি প্রতিষ্ঠান। কিন্তু মাস্কগুলো N95 মাস্কের সমমানের না হওয়ায় ইতোমধ্যে ১৭০ জন চিকিৎসক করোনায় আক্রান্ত হয়ে পড়েছে। জেএমআই নামের প্রতিষ্ঠানটির মাস্কগুলোকে নকল মাস্ক বলা হলেও, একটু গভীরে গিয়ে eআরকির গবেষক দল এই নকল মাস্কের পক্ষেই বের করেছেন দারুণ কিছু যৌক্তিক কারণ।

নকল N95 মাস্কের ম্যানুফ্যাকচারিং এর সাথে সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিরা চেষ্টা করেছেন করোনা ভাইরাসের মতো বৈচিত্রপূর্ণ মাস্ক বানাতে। তাতেই তৈরি হয়েছে এই অনাকাঙ্ক্ষিত জটিলতা। বিদেশ থেকে আনা আসল N95 মাস্ক পরা সংশ্লিষ্ট প্রোডাক্ট ডেভেলপমেন্টের এক কর্মকর্তা বলেন, 'করোনাভাইরাস ইতোমধ্যে ৩৮০ বার নিজের রূপ বদলেছে। সেজন্যই আমরা ৩৮০ রকমের বৈচিত্রপূর্ণ মাস্ক বানাতে চেয়েছিলাম। যখন যে রূপের ভাইরাস আসবে, তখন যেন সে ভাইরাসের জন্য প্রযোজ্য মাস্কটিই ব্যবহার করতে পারে। করোনা থেকে বাঁচতে আমরা করোনার আগে আগেই ছুটতে চেয়েছিলাম।'

আক্রান্ত চিকিৎসকরা সঠিক মাস্ক ব্যবহার করতে পারেনি বলেও দাবি করেন তিনি। তিনি বলেন, 'সবাই তো আক্রান্ত হয় নাই! যারা ভাইরাস চিনে সেই ভাইরাসের জন্য বানানো N95 পরেছে তারা কিন্তু এখনো ভালো আছে। যারা পরেনি, দায়িত্বে অবহেলা করেছে, তারাই আক্রান্ত হয়েছে। কেউ যদি N90 সাইজের ভাইরাসের জন্য N105 মাস্ক পরে সে দোষ আমরা কেন নিবো!'

কোয়ারেন্টাইনের নানান ঝামেলায় কিছুটা হতাশ হয়ে গেলেও পুনরায় আত্মবিশ্বাসে উজ্জীবিত হয়ে তিনি বলেন, 'আজকালকার দুনিয়ায় একটু ক্রিয়েটিভ হতে গেলেই ঝামেলায় পড়তে হয় জানি, কিন্তু তাও আমরা দমে যাবো না। ৩৮০ রূপের ভাইরাসের জন্য ৩৮০ রকম বৈচিত্র‍্যের মাস্ক বানাবোই। সরকারের কাছে ৩৮০ বার সেটা বিক্রিও করবো।'

এ সময় একটা ভি সাইন দেখিয়ে দাঁত বের করে একটা সরকারি স্টাইলের হাসি দিয়ে তিনি বলেন, 'দেশের জনগণ আমাদের পাশে আছে।'

[eআরকি একটি স্যাটায়ার ওয়েবসাইট। এখানে প্রকাশিত যেকোনো খবর নিজ দায়িত্বে বিশ্বাস করবেন, দায়িত্বহীনতায়ও করতে পারেন।]

৯৬৯ পঠিত ... ২০:০৪, এপ্রিল ২১, ২০২০

আরও

পাঠকের মন্তব্য

 

ইহাতে মন্তব্য প্রদান বন্ধ রয়েছে

আপনার পরিচয় গোপন রাখতে
আমি নীতিমালা মেনে মন্তব্য করছি।

আইডিয়া

গল্প

রম্য

সঙবাদ

সাক্ষাৎকারকি


Top