ব্রাহ্মণবাড়িয়ার মানুষদের জন্য বাজারে আসছে 'অ্যান্টিফাইটিং' ভ্যাকসিন

২০৬ পঠিত ... ১৮:৫৪, জুলাই ৩১, ২০২১

Maramarir-vaccine

আধুনিক সমাজ বিনির্মাণের লক্ষ্যে ব্রাহ্মণবাড়িয়া অঞ্চলের মানুষের জন্য মারামারির ভ্যাকসিন নিয়ে হাজির হয়েছে বিশ্বের একাধিক ভ্যাকসিন নির্মাতা প্রতিষ্ঠান। ব্রাহ্মণবাড়িয়ার ছেলে-বুড়ো সবাইকে দুই ডোজ টিকা দেয়ার কাজ দ্রুত শুরু হবে বলেও জানা যায়।

এই ভ্যাকসিন সম্পর্কে বলতে গিয়ে উদ্যোক্তাদের একজন বলেন, 'চেষ্টা তো আর কম করলাম না। থানা, পুলিশ, গ্রেফতার কিছুতেই কাজ হয়নি। এখন এই ভ্যাকসিনটাই শেষ চেষ্টা। এরপরও যদি এই সমস্যার সমাধান না হয় তাহলে এই মারামারি সহ্য করার জন্য নিজেদের জন্য ভ্যাকসিন বানানোর কাজে হাত দিবো।'

ভ্যাকসিন বানালেও ব্রাহ্মণবাড়িয়ার মানুষকে এই ভ্যাকসিন দেয়াটা বেশ চ্যালেঞ্জিং হবে বলে জানান স্থানীয় এক বহিরাগত। নিজের ব্যক্তিগত অভিজ্ঞতা থেকে তিনি বলেন, 'ওনারা তো সারাদিনই মারামারি করে। মারামারি না থাকলে ট্যাঁটা, বল্লম ঘুরায়া প্র‍্যাকটিস করে! এই কর্মতৎপর মানুষদের ভ্যাকসিন দেয়ার জন্য ফ্রি টাইম পাবেন না। দিতে হবে মারামারিরত অবস্থায় কিংবা প্র‍্যাকটিসরত অবস্থায়। ঝামেলা হইলো, এই অবস্থায় ভ্যাকসিন দিতে যাইয়া গিয়ে হাতের ভিতরে সুঁই ভেঙে থেকে যেতে পারে। এই রিস্ক কে নিবে! তখন তো আর রক্ষা নাই।'

যদিও নির্মাতা প্রতিষ্ঠানটি ভ্যাকসিন প্রদানের একটা বিকল্প পদ্ধতি ভাবছে। কাঁটা দিয়ে কাঁটা তোলার মত এই পদ্ধতি সম্পর্কে তারা বলেন, 'বল্লম আর ট্যাঁটার আগায় ভ্যাকসিন বসিয়ে দেয়া যেতে পারে। এভাবে ভ্যাকসিন প্রদানের আলাদা কার্যক্রমের ঝামেলাও নাই, এক দল আরেক দলরে ভ্যাকসিন মারবে।'

২০৬ পঠিত ... ১৮:৫৪, জুলাই ৩১, ২০২১

Top