ভরি দরে তরমুজ বিক্রি করতে চায় তরমুজ ব্যবসায়ী সমিতি

৭১৪ পঠিত ... ১৪:০১, এপ্রিল ২৯, ২০২১

bhori-dore-tormuj

জাতীয় ফল কাঁঠাল হলেও দাম আর সিন্ডিকেটের পুরোটা দখল করে আছে তরমুজ। পিস হিসেবে তিন থাপ্পড় দিয়ে বেচাবিক্রি হওয়া তরমুজ বিক্রি হচ্ছে কেজি দরে। দেয়া যাচ্ছে না থাপ্পড়ও। তবে সম্প্রতি দেখা যাচ্ছে আরও একটু ভিন্ন চিত্র। সোনার চেয়ে দামি এই ফলটি ভরি হিসেবে বিক্রি করার কোথা ভাবছে তরমুজ ব্যবসায়ী সমিতি।

এ বিষয়ে কথা বলতে চাইলে এক তরমুজ ব্যবসায়ী বলেন, 'বাত্তির রাজা ফিলিপস, মাছের রাজা তরমুজ। এই রাজকীয় ফল তো ভরি দরেই বিক্রি হবে। প্রতি ভরির দাম স্বর্ণের চেয়ে বেশি হবে না কম হবে সে বিষয়ে দ্রুতই সিদ্ধান্ত নেয়া হবে।'

স্বর্ণ আর তরমুজের মাঝে বিশেষ কোন পার্থক্য নাই বলেও দাবি করেন অন্য এক ব্যবসায়ী। বরং স্বর্ণের চেয়ে তরমুজকে এগিয়ে রাখার পক্ষে মত দিয়ে তিনি বলেন, 'খেয়াল কইরা দেখেন, স্বর্ণেরও চেয়ে বেশি লাল তরমুজ। আর গুণাগুণের কথা যদি বলেন, স্বর্ণ বাইরের গয়না, তরমুজ ভেতরের গয়না। ফুসফুস, লিভার সবকিছুই ভালো রাখে এই জিনিস। এমন গুণী ফলের দাম তো স্বর্ণের দামের সমান হওয়ারই কথা।'

সে সময় বিক্রিত (নাকি বিকৃত?) এক তরমুজ নিয়ে ফিরে আসেন এক ক্রেতা। ভিতরে টকটকে লাল হবে বলে বিক্রি করা তরমুজটির ভেতরে টোটালটাই সাদা বলে অভিযোগ করেন তিনি। অভিযুক্ত দোকানদার তরমুজ হাতে নিয়ে বলেন, 'এটা হোয়াইট গোল্ড। যত দিয়া নিছেন তার সাথে ভরি প্রতি ৪০ টাকা বাড়ায়া দিয়া যান।'

তবে সব দোকানদার ভরি হিসেবে বিক্রি করার পক্ষে না। ভরি প্রতি তরমুজ বিক্রি করা বেইনসাফি ও নিয়ম বহির্ভূত হওয়ায় তারা তরমুজে বিচির সংখ্যা হিসেবে তরমুজ বিক্রি করতে চান।

৭১৪ পঠিত ... ১৪:০১, এপ্রিল ২৯, ২০২১

Top