মামুনুল হককে চাঁদে আমন্ত্রণ জানিয়েছেন সাঈদি

১৯৭১ পঠিত ... ১৩:৩৭, এপ্রিল ১৯, ২০২১

mamunul-saidee-chad

গতকাল রোববার ঢাকার মোহাম্মদপুর থেকে গ্রেফতার হয় হেফাজত নেতা মামুনুল হক। এরপর তাকে তেজগাঁও থানা থেকে ডিবি কার্যালয়ে নেয়া হয়েছে বলে জানা যায়। তবে মামুনুলের মোহাম্মদপুর টু তেজগাঁও টু মিন্টু রোড ভ্রমণে বিরক্ত হয়েছে বাংলাদেশের একমাত্র চন্দ্রমানব মাওলানা দেলোয়ার হোসাইন সাঈদি। বিরক্তমাখা সুরে তিনি চাঁদ থেকে পৃথিবীর দিকে উঁকি দিয়ে মামুনুলের উদ্দেশ্যে বলেন, ‘গ্রেফতারের পর দেশের কোন ধর্মীয় নেতা এইসব ভকরচক্কর জায়গায় ঘুরে নাকি? চাঁদে চলে এসো। আমি গায়েবী দড়ি ফেলছি।'

২০১৩ সাল থেকে চাঁদে বসবাস করছেন সাঈদি। এই সময়ে নিজের অনেক ভক্ত-আত্মীয়কে চাঁদে বেড়াতে নিয়ে গিয়েছিলেন এই চন্দ্রমানব। আর সমমনা লোকদের পেলে আতিথেয়তায় কোন কমতি রাখেন না বলেও পরিচিত মহলে সুনাম রয়েছে তার। এমন একটি অভাবনীয় আমন্ত্রণ গ্রহণ করার জন্য ইতোমধ্যে মামুনুলের প্রতি অনুরোধ জানিয়েছে মামুনুলের ভক্তরা। তারা বলেন, 'আপনি যান হুজুর। আমরা আজ রাত ১২টায় হাবল টেলিস্কোপ নিয়ে চাঁদের দিকে তাকাবো। আপনি আমাদের দিকে একটু হাসি হাসি মুখ করে তাকাবেন। ছবি ভালো উঠবে।'

মামুনুলের ভক্তদের সাথে একাগ্রতা প্রকাশ করেছেন সাঈদির ভক্তরা। অনেকদিন পর হুজুরকে চাঁদে দেখার জন্য মামুনুল ভক্তদের সাথে তারাও চাঁদের পানে চেয়ে থাকবেন বলে জানা যায়।

মামুনুল হকের জন্য চাঁদে বিশেষ পসরা সাজিয়েছেন বলে জানান সাঈদি। গুণে গুণে ৫০১ পদের চন্দ্রীয় খাবারের পাশাপাশি মানবিক বিয়ের ব্যবস্থার কথাও জানান তিনি। একটি মুচকি হাসি দিয়ে সাঈদি বলেন, ‘চাঁদের বুড়ির দুইটা নাতনি আছে। মাশাল্লাহ, সুন্দরী। তাদের সাথে কথা বলেছি। তারা তোমাকে মানবিক বিয়ে করতে রাজি আছে। স্ত্রীর কাছ থেকে সীমিত ও পরিপূর্ণ পরিসরে সকল সত্য গোপনের নিশ্চয়তাও আছে। প্যারা নাই চিল! চলে আসো! তোমার অপেক্ষায় আছি।‘

মামুনুলের থাকার জায়গার বিশেষ বর্ণনা দিয়ে সাঈদি বলেন, 'চাঁদের ৫০১ নাম্বার পাহাড়ের ৫০১ নাম্বার গুহা প্রস্তুত করা আছে। গুহায় ৫০১ টনের একটা এসিও লাগিয়েছি। তোমাকে অন্তত ৫০১ দিন আমার সাথে থাকতে হবে। অনেক দিন কাছের মানুষ পাই না। মন খুইলা কথা কইতে পারি না। তুমি আসলে তোমাকে একদমই যেতে দিবো না।'

১৯৭১ পঠিত ... ১৩:৩৭, এপ্রিল ১৯, ২০২১

Top