বাঙালির হাঁচি-কাশি থুতনি দিয়ে বের হয়: চীনা বিশেষজ্ঞ দলের বিস্ময়কর আবিষ্কার

৫৩০ পঠিত ... ১৬:৩৩, জুন ২৩, ২০২০

চীন থেকে বিশেষজ্ঞদের একটি টিম এসেছে বাংলাদেশে। এই চাইনিজ বিশেষজ্ঞদের মূল উদ্দেশ্য ছিলো, বাংলাদেশে করোনা সংক্রমণ রোধ করা। তবে সে বিষয়ে এখনও 'খুব উপকার' করতে না পারলেও ইতোমধ্যে তারা ঘোষণা করেছেন এক চমকপ্রদ আবিষ্কার। বাঙালিদের নিয়ে গবেষণা করে তারা জানতে পেরেছেন, বাঙালির হাঁচি-কাশি মূলত থুতনি দিয়ে বের হয়৷

বিশেষজ্ঞদের টিম লিডার লি ওয়েন ঝিও উচ্ছ্বাস প্রকাশ করে বলেন, 'ইসিঝুকো মাকাদিচু ওয়াংচিকু থুতনিচু'। যার অর্থ, 'আমরা বিস্ময়ের সাথে লক্ষ্য করেছি বাঙালি হাঁচি দেয় থুতনি দিয়ে। কাশিও দেয় থুতনি দিয়ে।'

'মাস্কিচু থুতনিচু' অর্থাৎ এখানে সবাই থুতনিতেই মাস্ক পরিধান করে, এমনটা উল্লেখ করে ওয়েন ঝিও আরো বলেন, 'গভীরভাবে লক্ষ্য করেছি এখানে কেউ মুখে মাস্ক পরে না। প্রায় সবাই এখানে মাস্ক দিয়ে তাদের থুতনি ঢেকে রেখেছে। অর্থাৎ তারা নিশ্চয়ই থুতনির মাধ্যমে করোনা ছড়ানোর আশংকা করছে।'

হোমো স্যাপিয়েন্সের এমন বৈশিষ্ট্য খুবই বিরল, এমনটা জানিয়ে তিনি আরো বলেন, 'মহাকালের বিবর্তনে মানুষের আচরণেও পরিবর্তন এসেছে। তবে এরকম আচরণ জীববিজ্ঞানীরা আগে লক্ষ্য করেনি। হয়তো বাঙালিরা কয়েকশ বছর পর থুতনি দিয়েই খাবার খেতে শুরু করবে।'

অবশ্য এটাকে চীনের ব্যর্থ গবেষণা উল্লেখ করে চীনে অবস্থানরত বাংলাদেশি নাগরিক ফখরুল আবেদীন মিলন বলেন, 'থুতনিতে মাস্ক পরিধান করে বাঙালি মূলত আরাম পায়। আরামের জন্য বাঙালি যেকোনো কিছু করতে পারে। এটাকে ভিন্নভাবে ব্যাখ্যা করার কোনো অবকাশ নেই৷'

৫৩০ পঠিত ... ১৬:৩৩, জুন ২৩, ২০২০

Top