ইউটিউবে কোর্স করেছি, নীলক্ষেতের সার্টিফিকেটও আছে: ভ্যাকসিন পুশ করা প্রসঙ্গে ইউপি চেয়ারম্যান

১০১০ পঠিত ... ২১:১৮, ফেব্রুয়ারি ০৮, ২০২১

কুষ্টিয়ার কুমারখালি উপজেলার স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে স্বাস্থ্যকর্মীর পরিবর্তে ভ্যাকসিন পুশ করেছেন উপজেলা চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগের চেয়ারম্যান আবদুল মান্নান খান। এমন বিপদজনক কর্মকান্ড ঘটানোর পর সংবাদ মাধ্যম থেকে আবদুল মান্নান খানকে ফোন করা হলে তার ফোন বন্ধ পাওয়া যায়। তবে, বিষয়টি নিয়ে তার ফেক আইডি থেকে একটি সাক্ষাৎকার সংগ্রহ করে ফেলে eআরকি ইনভেস্টিগেশন টিম। তবে সাক্ষাৎকারটির কোনো ভিডিও বা অডিও আমাদের কাছে না থাকায় নিজ দায়িত্বে বিশ্বাস করবেন...

up chairman vaccine

প্রথমেই আমরা জানতে চাই, '৩-৪ জনকে ইনজেকশন পুশ করে কেমন লাগছে?'

প্রশ্ন করতেই পাশে রাখা একটি অ্যাপ্রন গায়ে জড়িয়ে তিনি বলেন, 'কেমন আর লাগবে? এ তো আমার নিত্যদিনের কাজ! এই যে কালকে আবার দিতে হবে অনেককে।'
: আপনার ফোন বন্ধ পেলাম।
: হ্যাঁ। ভ্যাকসিন পুশ করার সময় মনোযোগ যাতে সরে না যায় সেজন্য বন্ধ রেখেছি। নইলে আবার কোথাকার ইনজেকশন কোথায় গিয়ে লাগে!
: স্বাস্থ্য বিশারদরা তো বলছে, এভাবে প্রশিক্ষণ ছাড়া ইনিজেকশন পুশ বিপজজনক। আপনার...
: আমার প্রশিক্ষণ আছে তো! ইউটিউবে কোর্স করেছি। নীলক্ষেতের অরিজিনাল সার্টিফিকেটও আছে। দেখাবো?
: না থাক। এর আগে কোনো প্র‍্যাকটিস?
: হ্যাঁ। ডিপজলের 'পুশ কইরা দিমু' গানটি দুইবেলা করে দেখি।
: কিন্তু গানটা তো পুত কইরা দিমু...
: ওই একই কথা। এই পুশেই পুত হয়ে যেতে পারে... হাহাহা...
: এলাকার মানুষ আপনার কাছ থেকে ভ্যাকসিন নিতে ভয় পায়নি?
: না মিয়া। ওরা বরং নার্সকে ভয় পায়। ছোট বাচ্চাদের দেখেননি? ডাক্তার দেখলে ভয় পায়! বাবাকে দেখলে আশ্বস্ত হয়। একজন জনপ্রতিনিধির কাছে এলাকার মানুষ তো সন্তানের মতই।
: করোনা ভ্যাকসিন নিজ হাতে দিলেন। এই সাহস তো কোনো বিদেশি রাজনীতিবিদও করেননি। এমন কাজ করতে পেরে কেমন লাগছে?
: খুব ভালো লাগছে। এবার আক্ষরিক অর্থেই এলাকার মানুষের সেবা করছি। নার্সদের একটু অবসর দিচ্ছি। অনেকদিন পর নিজেকে জনগণের প্রকৃত সেবক মনে হচ্ছে। আমরা এভাবেই মানুষের পাশে থাকতে চাই।
: নার্সরা আপনাকে কিছু বলেনি?
: তারা কী বলবে? আমিই বলছি, নার্সরা টিকা দিতে গেলে মানুষ নড়াচড়া করে। আমি দিতে গেলাম, একদম ফ্রিজ। নড়াচড়া নাই। নার্সদের সুবিধাই হলো মনে হয়।

এ পর্যায়ে আমাদের প্রতিনিধিকে ভ্যাকসিন নেয়ার জন্য অফার করলে অজানা এক ভয়ে তিনি লাইন কেটে দেন।

১০১০ পঠিত ... ২১:১৮, ফেব্রুয়ারি ০৮, ২০২১

আরও

পাঠকের মন্তব্য

 

ইহাতে মন্তব্য প্রদান বন্ধ রয়েছে

আপনার পরিচয় গোপন রাখতে
আমি নীতিমালা মেনে মন্তব্য করছি।

আইডিয়া

গল্প

রম্য

সঙবাদ

স্যাটায়ার


Top